১৫ অগাস্ট ২০২০ ০৪:০৪ অপরাহ্ন

১৫ অগাস্ট ২০২০ ০৪:০৪ অপরাহ্ন

স্পোর্টস ডেস্ক

জুলাই ০৭, ২০২০
৭:৪২ পূর্বাহ্ন


এমন অভিজ্ঞতা কখনো হয়নি গার্দিওলার


পেপ গার্দিওলার কোচিং ক্যারিয়ারটা সাফল্যে মোড়ানো। বার্সেলোনাকে ১৪টি, বায়ার্ন মিউনিখকে ৭টি শিরোপা জেতানোর পর ম্যানচেস্টার সিটিকেও এনে দিয়েছেন ৮টি ট্রফি। সোনায় মোড়ানো সেই কোচিং ক্যারিয়ারে কখনো তিনি প্রতিপক্ষের মাঠে টানা তিন ম্যাচে হারেননি। তিক্ত সেই অভিজ্ঞতাই রোববার হয়ে গেল ৪৯ বছর বয়সী এই স্প্যানিশ কোচের। রোববার রাতে সাউদাম্পটনের কাছে ১-০ গোলে হার দেখে ম্যানচেস্টার সিটি। ইংলিশ প্রিমিয়ার লীগে প্রতিপক্ষের মাঠে এটি ছিল সিটির টানা তৃতীয়। অ্যাওয়ে ম্যাচের ছন্নছাড়া পারফরমেন্সের কারণেই টানা দুই লীগ জয়ের পর লিভারপুলের কাছে সিংহাসন হাতছাড়া হয়েছে ম্যানচেস্টার সিটির। চলমান আসরে এটি নবম হার ম্যানসিটির। এতগুলো হারের অভিজ্ঞতাও প্রথম হলো গার্দিওলার। বার্সেলোনা ও বায়ার্নের কোচ থাকাকালে এক মৌসুমে কখনো ৯টি লীগ ম্যাচে হার দেখেননি তিনি। সাউদাম্পটনের কাছে হারের পর গার্দিওলা বলেন, আমরা বেশ ভালোই খেলেছি, কিন্তু সেটাও জেতার জন্য যথেষ্ট হয়নি। আমরা যে গোল করতে পারি না তেমন দাবি করা যাবে না। কারণ লীগে সবচেয়ে বেশি গোল আমরাই করেছি। আমরা প্রচুর সুযোগ তৈরি করেছি আগেও। এই মৌসুমেও আমাদের বিপক্ষে প্রতিপক্ষ সবচেয়ে কম সুযোগ তৈরি করতে পেরেছে। কিন্তু সমস্যা হলো আমরা অনেক বেশি ম্যাচ হেরে ফেলেছি। এমনটা কেন হচ্ছে তার কারণ খুঁজে বের করা আমার জন্যও কঠিন।’ এদিন ষোড়শ মিনিটে গোল হজম করে সিটিজেনরা। এরপর সাউদাম্পটনের গোলমুখে ২৬ শট নিয়েও লক্ষ্যভেদ করতে ব্যর্থ। ২০১৬ সালে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের বিপক্ষেও ২৬ শট নিয়ে গোল করতে ব্যর্থ হয় তারা।