০৫ জুলাই ২০২২ ০৩:৪৮ অপরাহ্ন

০৫ জুলাই ২০২২ ০৩:৪৮ অপরাহ্ন

নন্দিত ডেস্ক

ফেব্রুয়ারী ১৫, ২০২২
১১:৩৭ পূর্বাহ্ন


আজ কবি আল মাহমুদের তৃতীয় মৃত্যুবার্ষিকী


সমকালীন বাংলা সাহিত্যের অন্যতম কবি আল মাহমুদের তৃতীয় মৃত্যুবার্ষিকী আজ মঙ্গলবার। ২০১৯ সালের এই দিনে মারা যান তিনি। কবির পুরো নাম মীর আবদুস শুকুর আল মাহমুদ।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার মৌড়াইলের মোল্লাবাড়িতে ১৯৩৬ সালের ১১ জুলাই জন্মগ্রহণ করেন আল মাহমুদ। তার বাবার নাম আবদুর রব মীর ও মা রৌশন আরা বেগম। তিনি কুমিল্লার দাউদকান্দির সাধনা হাই স্কুল এবং পরে চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড হাই স্কুলে পড়াশোনা করেন। সেই থেকে তার লেখালেখির শুরু।

সংবাদপত্রে লেখালেখির এক পর্যায়ে ১৯৫৪ সালে আল মাহমুদ ঢাকায় আসেন। কবি আবদুর রশীদ ওয়াসেকপুরী সম্পাদিত সাপ্তাহিক কাফেলায় লিখতে থাকেন। পাশাপাশি দৈনিক মিল্লাত পত্রিকায় সম্পাদনা সহকারী হিসেবে সাংবাদিকতায় হাতেখড়ি নেন। পরে ১৯৫৫ সালে কবি ওয়াসেকপুরী কাফেলার চাকরি ছেড়ে দিলে তিনি সম্পাদক হিসেবে যোগ দেন। মুক্তিযুদ্ধের পর দৈনিক গণকণ্ঠ প্রকাশিত হয় তারই সম্পাদনায়। সে সময় এক বছরের জন্য কারাবন্দি থাকতে হয় তাকে।

আল মাহমুদের প্রথম বই 'লোক লোকান্তর' প্রকাশিত হয় ১৯৬৩ সালে। দ্বিতীয় বই 'কালের কলস' প্রকাশিত হয় ১৯৬৬ সালে। এ দুটি কবিতার বইয়ের জন্য তিনি ১৯৬৮ সালে বাংলা একাডেমি পুরস্কার পান। মুক্তিযুদ্ধের পর গল্প লেখায় মনোযোগী হন আল মাহমুদ। ১৯৭৫ সালে তার প্রথম ছোটগল্পের বই 'পানকৌড়ির রক্ত' প্রকাশিত হয়।

পরে ১৯৭৫ সালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান তাকে শিল্পকলা একাডেমির গবেষণা ও প্রকাশনা বিভাগের সহপরিচালক পদে নিয়োগ দেন। দীর্ঘদিন দায়িত্ব পালনের পর তিনি পরিচালক হন।