২৭ অক্টোবর ২০২০ ১১:৫৭ পূর্বাহ্ন

২৭ অক্টোবর ২০২০ ১১:৫৭ পূর্বাহ্ন

শ্রীমঙ্গল প্রতিনিধি

অক্টোবর ১১, ২০২০
১১:১০ অপরাহ্ন


শ্রীমঙ্গলে গৃহবধূকে ধর্ষণের মামলায় দু’জন কারাগারে


মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে স্বামীকে জেল থেকে ছাড়িয়ে আনতে উকিলের কাছে নিয়ে যাওয়ার কথা বলে গেস্ট হাউজে আটকে রেখে এক গৃহবধু (৩০ )-কে সংঘবদ্ধভাবে ধর্ষণের অভিযোগে দু’জনকে গ্রেফতার করেছে থানা পুলিশ। রবিবার দুপৃরের দিকে উপজেলার আমরাইল ছড়া চা বাগান থেকে তাদেরকে গ্রেফতার করা হয় । গ্রেফতারকৃতরা হলেন, উপজেলার ভূনবীর ইউনিয়নের আঐ গ্রামের মৃত ছুরুক মিয়ার পুত্র কাজল মিয়া (৩০) ও মৃত রহমান মিয়ার পুত্র মতিন মিয়া (২০)। ভিকটিম গতকাল শনিবার শ্রীমঙ্গল থানায় উপস্থিত হয়ে মামলা দায়ের করেন। পুলিশ মামলাটি আমলে নিয়ে রবিবার তাদেরকে গ্রেফতার করে মৌলভীবাজার আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়। শ্রীমঙ্গল থানার ওসি (তদন্ত) মো. সোহেল রানা বলেন, ধর্ষিতা গৃহবধু অভিযোগ করেছেন গত ১৯ সেপ্টেম্বর সকালে তার গ্রেফতারকৃত স্বামীকে থানায় দেখিয়ে কোর্টের মাধ্যমে ছাড়িয়ে আনার জন্য একজন উকিলের সাথে পরামর্শ করার কথা বলে তাকে বাড়ি থেকে নিয়ে আসে। ওই দিন সকাল ১১টার দিকে শ্রীমঙ্গল শহরের একটি গেস্ট হাউজে গৃহবধুকে নিয়ে একটি রুমে বসায় কাজল ও মতিন। অনেকক্ষন বসার পর তারা দু’জনে গৃহবধুর সাথে থাকা ৫ বছরের শিশুকে অন্য কক্ষে নিয়ে যায়। এরপর একজন একজন করে তাকে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে গেস্ট হাউজে রেখে চলে যায়। সেখান থেকে বের হয়ে গৃহবধু বাড়ি ফিরে যান। পরে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা নেন তিনি। শারীরিকভাবে অসুস্থ থাকায় থানায় অভিযোগ করতে দেরি হয় বলে মামলার এজহারে উল্লেখ করেন তিনি।